সিলেটকে পাত্তাই দিলো না চট্টগ্রাম

নিউজ ডেস্ক || দিন বদল বাংলাদেশ

প্রকাশিতঃ সন্ধ্যা ০৬:১৯, সোমবার, ২৯ জানুয়ারি, ২০২৪, ১৫ মাঘ ১৪৩০
ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

শুরুতে দুই ওপেনারকে হারানোর ধাক্কা সামলে উঠে সিলেটকে লড়াইয়ে ফেরান টেক্টর ও জাকির হাসান। ৪৯ বলে ৫৭ রানের জুটি গড়েন তারা। ৪টি চার ও ১টি ছক্কায় ২৬ বলে ৩১ রান করা জাকিরকে শিকার করে ১১তম ওভারে চট্টগ্রামকে ব্রেক-থ্রু এনে দেন স্পিনার নিহাদুজ্জামান।

তানজিদ হাসান তামিম ও টম ব্রুসের জোড়া ফিফটিতে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) সিলেট স্ট্রাইকার্সকে বড় ব্যবধানে হারিয়েছে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স। সোমবার (২৯ জানুয়ারি) টুর্নামেন্টে নিজেদের পঞ্চম ম্যাচে চট্টগ্রাম ৮ উইকেটে হারিয়েছে সিলেটকে। ৫ ম্যাচে চতুর্থ জয়ে ৮ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে উঠলো চট্টগ্রাম। অপরদিকে, চার ম্যাচের চারটিতেই হারলো মাশরাফি বিন মর্তুজার সিলেট।

 

সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আজ দিনের প্রথম ম্যাচে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নামা সিলেট ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারে দুই ওপেনারকে বিদায় করেন চট্টগ্রামের পেসার ওমানের বিলাল খান। মোহাম্মদ মিঠুন ১ ও নাজমুল হোসেন শান্ত ৫ রানে সাজঘরে ফিরেন। 

শুরুতে দুই ওপেনারকে হারানোর ধাক্কা সামলে উঠে সিলেটকে লড়াইয়ে ফেরান টেক্টর ও জাকির হাসান। ৪৯ বলে ৫৭ রানের জুটি গড়েন তারা। ৪টি চার ও ১টি ছক্কায় ২৬ বলে ৩১ রান করা জাকিরকে শিকার করে ১১তম ওভারে চট্টগ্রামকে ব্রেক-থ্রু এনে দেন স্পিনার নিহাদুজ্জামান।

দলীয় ৬৫ রানে জাকির ফেরার পর বার্লকে নিয়ে ৩৭ বলে ৪২ রান যোগ করেন টেক্টর। ১৭তম ওভারে বিলালের তৃতীয় শিকার হন ব্যক্তিগত ৩৫ রানে  জীবন পাওয়া টেক্টর। ২টি চার ও ১টি ছক্কায় ৪২ বলে ৪৫ রান করেন টেক্টর।

ইনিংসে শেষ ২২ বলে জুটি বেঁধে অবিচ্ছিন্ন ৩০ রান তুলে সিলেটকে ৪ উইকেটে ১৩৭ রানের সংগ্রহ এনে দেন বার্ল ও আরিফুল হক। ৪টি চারে ২৯ বলে অনবদ্য ৩৪ রান করেন বার্ল। ১টি করে চার-ছক্কায় ১২ বলে অপরাজিত ১৭ রান করেন আরিফুল। চট্টগ্রামের বিলাল ২৪ রানে ৩ উইকেট নেন।

১৩৮ রানের টার্গেটে খেলতে নেমে ২৩ রানের সূচনা পায় চট্টগ্রাম। ৩টি চারে ১৭ রান করা শ্রীলংকার আবিস্কা ফার্নান্দোকে শিকার করেন সিলেটকে প্রথম সাফল্য এনে দেন পেসার তানজিম হাসান সাকিব।

শুরুটা ভালো না হলেও দ্বিতীয় উইকেটে ৬৫ বলে ৮৯ রানের জুটি গড়ে চট্টগ্রামের জয়ের পথ সহজ করেন তানজিদ ও ব্রুস। এই জুটিতে টি-টোয়েন্টিতে তৃতীয় হাফ-সেঞ্চুরি পূর্ণ করে টেক্টরের বলে বোল্ড হন ৩টি চার ও ২টি ছক্কায় ৪০ বলে ৫০ রান করা তানজিদ।

তৃতীয় উইকেটে ২৬ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটি গড়ে ১৪ বল বাকী রেখে চট্টগ্রামের জয় নিশ্চিত করেন ব্রুস ও শাহাদাত হোসেন। ৩টি চার ও ২টি ছক্কায় ৪৪ বলে  ৫১ রানে অপরাজিত থাকেন ব্রুস। ১৩ রানে অপরাজিত থাকেন শাহাদাত। সিলেটের তানজিম ও টেক্টর ১টি করে উইকেট নেন।

দিনবদলবিডি/Nasim

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়