ওডেসায় রুশ ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, নিহত ২০

নিউজ ডেস্ক || দিন বদল বাংলাদেশ

প্রকাশিতঃ সকাল ০৯:৫১, শনিবার, ১৬ মার্চ, ২০২৪, ২ চৈত্র ১৪৩০
ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

ওডেসার গভর্নর ওলেহ কিপার জাতীয় টেলিভিশনে বলেছেন, রাশিয়া-অধিকৃত ক্রিমিয়া উপদ্বীপ থেকে ছোড়া দুটি ইস্কান্দার-এম ক্ষেপণাস্ত্র  দক্ষিণ শহরের বেসামরিক অবকাঠামো এবং গ্যাস ও বিদ্যুৎ সরবরাহ লাইন ক্ষতিগ্রস্ত করেছে।

ইউক্রেনের বন্দর নগর ওডেসায় জোড়া ক্ষেপণাস্ত্র হামলা করেছে রাশিয়া। এতে অন্তত ২০ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও ৭৩ জন। আহতদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের আঘাত গুরুতর বলে জানিয়েছেন ইউক্রেনীয় কর্মকর্তারা।

রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, গত কয়েক সপ্তাহের মধ্যে ইউক্রেনে এটিই রাশিয়ার সবচেয়ে বড় প্রাণঘাতী হামলা। 

শুক্রবার (১৫ মার্চ) সকাল থেকে রাশিয়াজুড়ে শুরু হয়েছে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট গ্রহণ; ভোট শুরুর কয়েক ঘণ্টা পর স্থানীয় সময় বেলা ১১টার দিকে প্রথম ক্ষেপণাস্ত্রটি আঘাত হানে ওডেসায়। সেটির আঘাতের পর ইউক্রেনের জরুরি পরিষেবা বিভাগের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন। সে সময় দ্বিতীয় ক্ষেপণাস্ত্রটি ছোড়ে রুশ সেনারা। 

 

সামরিক পরিভাষায় এ ধরনের ক্ষেপণাস্ত্র হামলাকে ‘ডবল ট্যাপ হামলা’ বলা হয়। জরুরি পরিষেবা বিভাগের মুখপাত্র মারিয়ানা অ্যাভেরিনা বলেন, ২০২২ সালের ফেব্রুয়ারিতে ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরুর পর এই প্রথম ওডেসায় ‘ডবল ট্যাপ’ হামলা চালিয়েছে রুশ বাহিনী।

ওডেসার গভর্নর ওলেহ কিপার জাতীয় টেলিভিশনে বলেছেন, রাশিয়া-অধিকৃত ক্রিমিয়া উপদ্বীপ থেকে ছোড়া দুটি ইস্কান্দার-এম ক্ষেপণাস্ত্র  দক্ষিণ শহরের বেসামরিক অবকাঠামো এবং গ্যাস ও বিদ্যুৎ সরবরাহ লাইন ক্ষতিগ্রস্ত করেছে।

 

গভর্নর আরও জানিয়েছেন, প্রথম হামলায় আহত লোকজনের চিকিৎসার জন্য ঘটনাস্থলে যাওয়ার পর দ্বিতীয় ক্ষেপণাস্ত্রের আঘাতে একজন চিকিৎসক ও একজন উদ্ধারকারী নিহত হন। ১০ জন গুরুতর আহত হয়েছেন।

স্থানীয় কর্মকর্তারা এবং জাতীয় পুলিশ জানিয়েছে, জোড়া ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় অন্তত ২০ জন নিহত হয়েছেন। নিহতদের মধ্যে অন্তত দুইজন সিনিয়র অফিসারসহ পুলিশ রয়েছে। নগরীর সাবেক একজন ডেপুটি মেয়রও নিহত হয়েছেন।

ইউক্রেনের বৃহত্তম বন্দর ওডেসায় দীর্ঘদিন ধরেই আক্রমণ চালিয়ে আসছে রাশিয়া। বিশেষ করে কৃষ্ণ সাগরীয় শস্য চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসার পর আক্রমণের তীব্রতাআরও বাড়িয়েছে তারা। জাতিসংঘের মধ্যস্থতায় ওই চুক্তির আওতায় ওডেসা বন্দর থেকে নিরাপদ সামুদ্রিক করিডোর দিয়ে শস্য রপ্তানি করে আসছিল ইউক্রেন।

 

শুক্রবার ভোরে রাশিয়ার কালুগা অঞ্চলে একটি ছোট তেল শোধনাগারে ড্রোন হামলা চালিয়েছে ইউক্রেন। এর কয়েক ঘণ্টা পরই ওডেসায় ভয়াবহ এই জোড়া ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় রুশ বাহিনী। 

এর ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়ে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি টেলিগ্রামে এক পোস্টে বলেছেন, ‘আমাদের প্রতিরক্ষা বাহিনী অবশ্যই রাশিয়ান খুনিরা যেন উপযুক্ত প্রতিক্রিয়া অনুভব করে তা নিশ্চিত করার জন্য সবকিছু করবে।’

 

রাশিয়ায় তিন দিনব্যাপী ভোটগ্রহণ শেষ হবে ১৭ মার্চ রোববার রাত আটটায়। এবারের নির্বাচনের মাধ্যমে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন আরও ছয় বছরের জন্য দেশটির ক্ষমতায় আসতে যাচ্ছেন বলে মনে করা হচ্ছে।

দিনবদলবিডি/Nasim

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়