দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী কেজরিওয়াল ৭ দিনের রিমান্ডে

নিউজ ডেস্ক || দিন বদল বাংলাদেশ

প্রকাশিতঃ বিকাল ০৪:০৮, শনিবার, ২৩ মার্চ, ২০২৪, ৯ চৈত্র ১৪৩০
ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

ভারতের লোকসভা নির্বাচনের আগে কেজরিওয়ালের গ্রেপ্তারে আম আদমি পার্টি নেতৃত্ব সংকটে পড়বে বলে ধারণা করছেন বিশেষজ্ঞরা। তবে দলের নেতারা বলছেন, কেজরিওয়াল যেখানেই থাকুক সেখানে বসেই দায়িত্ব পালন করবেন।

ভারতের দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালকে আবগারি দুর্নীতি মামলায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ইডির হেফাজতে ৭ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে দেশটির আদালত।

এনডিটিভি জানিয়েছে, গতকাল (২২ মার্চ) শুক্রবার দিল্লির রাউস অ্যাভিনিউ আদালত আগামী ২৮ মার্চ পর্যন্ত দেশটির কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থা এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের (ইডি) হেফাজতে কেজরিওয়ালের রিমান্ড মুঞ্জর করেছে।

এই ঘটনায় প্রতিবাদে আগামী ২৬ মার্চ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বাসভবন ঘেরাওয়ের কর্মসূচি ঘোষণা করেছেন দেশটির বিরোধী দলের নেতারা।

তার আগের দিন রোববার দিল্লির প্রতিটি বিধানসভা এলাকায় নরেন্দ্র মোদীর কুশপুত্তলিকা দাহ কর্মসূচি পালন করবেন তারা। তাই কেজরিওয়ালের বাসভবনের আশেপাশের এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করেছে দেশটির আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

আগামী লোকসভা নির্বাচনের আগে দিল্লির মুখ্যমন্ত্রীকে গ্রেপ্তার করা নির্বাচনের মাঠে বিরোধী দলগুলোকে কোণঠাসা করে রাখার উদ্দেশ্য বলে মন্তব্য করেছেন বিরোধী জোট ইন্ডিয়া।

ভারতের লোকসভা নির্বাচনের আগে কেজরিওয়ালের গ্রেপ্তারে আম আদমি পার্টি নেতৃত্ব সংকটে পড়বে বলে ধারণা করছেন বিশেষজ্ঞরা। তবে দলের নেতারা বলছেন, কেজরিওয়াল যেখানেই থাকুক সেখানে বসেই দায়িত্ব পালন করবেন।

দুর্নীতির অভিযোগ এনে গত বৃহস্পতিবার দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সরকারি বাসভবনে তল্লাশি চালায় ভারতের এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট-ইডি প্রতিনিধিরা।

প্রায় দু’ঘণ্টার তল্লাশি শেষে কেজরিওয়ালের ফোন জব্দ করে আবগারি নীতি মামলায় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। স্বাধীন ভারতের ইতিহাসে কেজরিওয়াল প্রথম ব্যক্তি, যিনি মুখ্যমন্ত্রী থাকা অবস্থায় গ্রেপ্তার হয়েছেন।

তবে কেজরিওয়াল তার বিরুদ্ধে ওঠা সব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। তার দল দাবি করেছে, যেসব দুর্নীতির অভিযোগ তোলা হয়েছে সেসবের একটিরও প্রমাণ এখন পর্যন্ত উদ্ধার করতে পারেনি ইডি।

দিনবদলবিডি/Nasim

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়