গ্রিল কেটে ঘরে ঢুকে হাত-মুখ বেঁধে ডাকাতি, স্বর্ণালঙ্কার লুট

দিনবদলবিডি ডেস্ক || দিনবদলবিডি.কম

প্রকাশিত: দুপুর ০২:৪৫, রবিবার, ১৭ জুলাই, ২০২২, ২৪ শ্রাবণ
গ্রিল কেটে ঘরে ঢুকে হাত-মুখ বেঁধে ডাকাতি, স্বর্ণালঙ্কার লুট

প্রতীকী ছবি

গাজীপুরের কালীগঞ্জে এক বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। ডাকাতেরা বাড়ির লোকজনের হাত-মুখ বেঁধে নগদ টাকা, স্বর্ণালঙ্কার এবং মূল্যবান মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে। ডাকাতদের মারধরে গৃহকর্তার স্ত্রী ও বড় মেয়ের স্বামী (জামাতা) আহত হয়েছেন।

শুক্রবার দিবাগত গভীর রাতে কালীগঞ্জ উপজেলার নাগরী ইউনিয়নের কেটুন গ্রামের রুহুল আমিন সরকারের বাড়িতে এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে।

নাগরী ইউপি সদস্য বিকাশ চন্দ্র দত্ত ও স্থানীয়রা জানান, গাজীপুরের কালীগঞ্জ থানাধীন কেটুন গ্রামের মৃত চাঁন মিয়া সরকারের ছেলে রুহুল আমিন সরকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে চাকরি করেন। শুক্রবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে মুখোশ ও হাফপ্যান্ট পরিহিত ৮/১০ জনের একদল ডাকাত ওই বাড়িতে হানা দেয়। বাড়ির বারান্দার গ্রিল কেটে ঘরে ঢুকে অস্ত্রের মুখে রুহুল আমিনের স্ত্রী জেবুন্নাহার ডলিকে (৪৫) জিম্মি করে তার হাত ও মুখ বেঁধে ফেলে। পরে তারা ডলির দুই মেয়ে ও বড় মেয়ের স্বামীকে জিম্মি করে একটি কক্ষে নিয়ে তাদের হাত ও মুখ বেঁধে রেখে নগদ টাকাসহ প্রায় ১৫ ভরি স্বর্ণালঙ্কার লুট করে।

এসময় ডাকাতরা গাড়ি কেনার জন্য ব্যাংক থেকে উঠানো টাকার খোঁজ করে। ওই টাকার খোঁজ না পেয়ে দুর্বৃত্তরা গৃহকর্ত্রী জেবুন্নাহার ডলি এবং জামাতা অনিককে বেধড়ক মারধর করে। পরে লুণ্ঠিত মালামাল নিয়ে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। ডাকাতরা চলে যাওয়ার পর বাড়ির লোকজনের ডাকচিৎকারে প্রতিবেশিরা এগিয়ে এসে আহত দু’জনকে উদ্ধার করে রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে নেয়। ঘটনার রাতে গৃহকর্তা রুহুল আমিন সরকার বাড়িতে ছিলেন না।

কালীগঞ্জ থানার ডিউটি অফিসার এস আই এমদাদুল হোসাইন জানান, খবর পেয়ে ভোরেই পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। সকালে পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ, গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ ও র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটলিয়ান (র‌্যাব) সদস্যরাও ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কাউকে আটক হয়নি। তবে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

দিনবদলবিডি/এইচএআর

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়