পূর্ণিমার প্রথম প্রেম

দিনবদলবিডি ডেস্ক || দিনবদলবিডি.কম

প্রকাশিত: দুপুর ০২:১৮, রবিবার, ২৪ জুলাই, ২০২২, ২৪ শ্রাবণ

ঢাকাই ছবির নায়িকা দিলারা হানিফ পূর্ণিমা বিয়ের খবরে ফের আলোচনায়। বৃহস্পতিবার রাতে নিজের দ্বিতীয় বিয়ের খবর জানালেও আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়েছে প্রায় ২ মাস আগেই।

এদিকে হুট করে এমন খবরে পূর্ণিমাভক্তদের কারো মন ভেঙেছে। কেউ বা শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

পূর্ণিমা

পূর্ণিমার এমন সুখবরে যাদের মন ভেঙেছে তাদের জন্য খবর- এ নায়িকার প্রথম প্রেম বলিউড সুপারস্টার সালমান খান।  ‘হাম আপকে হ্যায় কৌন’ সিনেমা দেখেই এ নায়কের প্রেমে পড়েন পূর্ণিমা।

২০১৫ সালে একটি বেসরকারি টিভি স্টেশনের সঙ্গে আলাপকালে নিজের প্রথম প্রেমের কথা জানান পূর্ণিমা।

পূর্ণিমার স্বামীর নাম আশফাকুর রহমান রবিন। এটি এ নায়িকার দ্বিতীয় বিয়ে। তার প্রথম স্বামীর নাম আহমেদ ফাহাদ জামাল। সে সংসারে আরশিয়া উমাইজা নামে পূর্ণিমার একটি মেয়েও আছে।

ভক্ত-অনুরাগীরা তো দূরের কথা পূর্ণিমার সাবেক স্বামীই জানতেন না এ বিয়ের কথা।

গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, পূর্ণিমার বিয়ের খবর আমিও জানতাম না। গণমাধ্যমের বরাতে এখন জেনেছি।

পূর্ণিমা

হুট করে বিয়ের সিদ্ধান্ত নেওয়ায় ও অসুস্থতার জন্য বিষয়টি জানানো হয়নি বলে জানিয়েছেন পূর্ণিমা।

বিয়ের প্রসঙ্গে এই নায়িকা বলেন, ‘সিদ্ধান্তটা নেওয়া হয়েছে হুট করেই। রোজার ঈদের পর। পরিবারকে যখনই জানানো হয়েছে ওনারা বলেছেন, ‘তাহলে আর দেরি করো না। এক দুই সপ্তাহের মধ্যে বিয়ে করে ফেলো।’ কোনো ধরনের প্রস্তুতিও ছিল না। হুট করেই আমরা বিয়েটা করেছি। বিয়ের পর সবাই একটু অসুস্থ ছিলাম। প্রত্যেকেরই জ্বর, আমার আম্মা এখনো হাসপাতালে ভর্তি। ফলে বিয়ের পর কোথাও ঘুরতে যাওয়ারও সুযোগ হয়নি।’

দুই মাসে নতুন জীবনের অভিজ্ঞতা কেমন?

জানতে চাইলে পূর্ণিমা বলেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ! খুবই ভালো। ভালোভাবে আছি। সব ধরনের নেতিবাচকতা থেকে দূরে থাকতে চাচ্ছি। সবাই যেন ইতিবাচকভাবে আমার বিষয়গুলো নিয়ে ভাবে। কারণ মানুষ নেগেটিভ ভাইব দিয়ে এসব নিউজ ক্যাশ করতে চায়। ওটাকে ভয় পাচ্ছিলাম। আল্লাহর রহমতে যখন দেখলাম আমার দুই পরিবারই খুবই ভালোভাবে মেনে নিয়েছে।’

দিনবদলবিডি/আরএজে

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়