গান ‘বিকৃত’ করে গাইব না: পুলিশকে হিরো আলমের মুচলেকা

দিন বদল বাংলাদেশ ডেস্ক || দিন বদল বাংলাদেশ

প্রকাশিতঃ রাত ০৮:৪১, বুধবার, ২৭ জুলাই, ২০২২, ১২ শ্রাবণ ১৪২৯
হিরো আলম। ফাইল ছবি

হিরো আলম। ফাইল ছবি

রবীন্দ্র সংগীত গেয়ে সমালোচনার মুখে পড়া আশরাফুল আলম (হিরো আলম) পুলিশের জিজ্ঞাসবাদের মুখোমুখি হলেন, ছাড়া পেলেন বিকৃত করে আর গান না গাওয়ার মুচলেকা দিয়ে।

আজ বুধবার সকালে হিরো আলমকে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) কার্যালয়ে ডেকে নেওয়া হয়। দুই ঘণ্টা পর মুচলেকা নিয়ে তাকে ছেড়ে দেওয়া হয় বলে জানিয়েছেন ডিবির অতিরিক্ত কমিশনার হারুণ অর রশিদ।

নিজের মতো করে গান গেয়ে ও মিউজিক ভিডিও তৈরি করে সোশ্যাল মিডিয়ার কল্যাণে সারা দেশে পরিচিত বগুড়ার হিরো আলম। ২০১৮ সালে জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও প্রার্থী হয়েছিলেন তিনি।

সম্প্রতি তিনি রবীন্দ্র সংগীত গাইলে তা নিয়ে ওঠে সমালোচনা। তিনি গান ‘বিকৃত’ করেছেন বলে বিশিষ্টজনদের কাছ থেকে অভিযোগ পেয়ে হিরো আলমকে ডেকে নেয় ডিবির সাইবার ক্রাইম ইউনিট।

পুলিশ কর্মকর্তা হারুণ বলেন, ‘অনেক বিশিষ্ট ব্যক্তি বলেছেন, এগুলো (হিরো আলমের গান) এদেশের কৃষ্টি সংস্কৃতির সঙ্গে মিলে না এবং বিকৃত।

‘সাইবার ইউনিটে আসা এসব অভিযোগের বিষয়টি যাচাই করে তাকে ডেকে আনা হয়। তার সঙ্গে প্রায় দুই ঘণ্টা কথা হয়েছে। পরে দুপুরে তিনি চলে যান।’

হিরো আলমের কাছ থেকে কী মুচলেকা নেওয়া হয়েছে- জানতে চাইলে হারুণ বলেন, ‘তিনি নজরুল বা রবীন্দ্র সংগীতসহ কোনো গান বিকৃতভাবে গাইবেন না, অনুমতি ছাড়া আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর কোনো পোশাক পরে অভিনয় করবেন না। বিতর্কিত হয় এমন কোনো অভিনয়, মন্তব্য, গান গাইবেন না- এ ধরনের মুচলেকা দেন।’

হিরো আলম পুলিশের পোশাক পরে যে অভিনয় করেছেন, তা নিয়ম লঙ্ঘন দাবি করে হারুণ বলেন, পুলিশের পোশাক পরে অভিনয় করতে হলে অনুমতির প্রয়োজন রয়েছে। হিরো আলম সেটা নেন না। এসব বিষয় নিয়ে সাধারণ মানুষের কাছে ভুল মেসেজ যায়।

‘আমরা তাকে এসব বুঝিয়েছি, অনেক কথা হয়েছে। তিনি মেনে নিয়ে বলেছেন, এসব করা তার ঠিক হয়নি। আর এসব করবেন না বলে কথা দিয়েছেন।’

ডিবির জিজ্ঞাসাবাদের বিষয়ে হিরো আলমের কোনো বক্তব্য তাৎক্ষণিকভাবে পাওয়া যায়নি।

দিনবদলবিডি/এইচএআর

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়